নাটোরের কাদিরাবাদ সেনানিবাসে ৮ম কর্নেল কমান্ড্যান্ট অভিষেক ও বাৎসরিক অধিনায়ক সম্মেলন অনুষ্ঠিত

নাটোর প্রতিনিধি: গোলাম গাউস

বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর প্রধান এস এম শফিউদ্দিন আহমেদ বলেছেন, এক বিংশ শতাব্দীর চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় বাংলাদেশে সেনাবাহিনী ‘ফোর্সেস গোল ২০৩০’ বাস্তবায়নের সেনাবাহিনীর সাংগঠনিক কাঠামো পরিবর্তনের পাশাপাশি সেনাবাহিনীর আধুনিকায়নের প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে। সেনাবাহিনী আজ আন্তর্জাতিক পর্যায়ে শান্তি প্রতিষ্ঠায় কাজ করে যাচ্ছে। দেশ ও জাতি গঠনে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর বিশেষ করে কোর অব ইঞ্জিনিয়ার্স এর বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডের ভূয়সী প্রশংসা করেন। সন্ত্রাস দমনসহ কক্সবাজারের মেরিন ড্রাইফ নির্মাণ ও ঢাকার হাতিরঝিল রাস্তা নির্মাণ এবং বোদ্ধ বিহার স্থাপনের মত উন্নয়নমূলক কাজ করেছে সেনাবাহিনী। আজ বুধবার নাটোরের কাদিরাবাদ সেনানিবাসের আজ বুধবার কাদিরাবাদ সেনানিবাসের ইঞ্জিনিয়ার সেন্টার এন্ড স্কুল অব মিলিটারী ইঞ্জিনিয়ারিং এর শহীদ শামসুল হুদা প্যারেট গ্রাউন্ডে ৮ম কর্নেল কমান্ড্যান্ট অভিষেক এবং বাৎসরিক অধিনায়ক সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।
অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আর্মি সদর দপ্তরের ট্রেনিং এন্ড ডকট্রিম কমান্ড লেফটেন্যান্ট জেনারেল এস এম মতিউর রহমান, বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ইঞ্জিনিয়ার ইন চীফ মেজর জেনারেল ইবনে ফজল সায়েখুজ্জামান, বগুড়া এরিয়া কমান্ডার মেজর জেনারেল এ কে এম নাজমুল হাসান, কাদিরাবাদ সেনানিবাসের ইঞ্জিনিয়ার সেন্টার এন্ড স্কুল অব মিলিটারী ইঞ্জিনিয়ারিং এর ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোহাম্মদ মনিরুজ্জামানসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ এবং ইঞ্জিনিয়ার কোরের সকল ইউনিটকে অধিনায়কগণ অংশগ্রহণ করেন।
অনুষ্ঠানে নবনিযুক্ত কর্নেল কমান্ড্যান্ট ও সেনাবাহিনীর উচ্চ পদস্থ অফিসার সহ ইঞ্জিনিয়ার কোরের সকল সামরিক-বেসামরিক ব্যক্তিবর্গের উদ্দেশ্যে দরবার নেন। দরবার শেষে কর্নেল কমান্ড্যান্ট কোয়ার্টার কার্ড পরিদর্শন করেন এবং মহান মুক্তিযুদ্ধের বীর শহীদদের উদ্দেশ্যে শ্রদ্ধার্ঘ্য ও স্মৃতিসৌধে পু®পামাল্য অর্পণ করেন। এছাড়াও কর্নেল কমান্ড্যান্ট, বাৎসরিক অধিনায়ক সম্মেলন ২০২১ এ আগত অতিথিবৃন্দের উদ্দেশ্যে ভাষণ প্রদান করেন। পরে নবনিযুক্ত কর্নেল কমান্ড্যান্ট তাঁর সম্মানে আয়োজিত প্রীতিভোজে এ প্রধান অতিথি হিসেবে যোগদান করেন। ২৪-১১-২০২১

শর্টলিংকঃ